শুধু নির্ভয়াকাণ্ডের চার দোষীকে ফাঁসি দিয়ে কী হবে, প্রশ্ন তনুশ্রী দত্তের

গত মঙ্গলবার দিল্লির পাতিয়ালা হাউস কোর্ট নির্ভয়া গণধর্ষণ এবং হত্যাকাণ্ডে চার দোষীর মৃত্যুদণ্ডের পরোয়ানা জারি করেছে। আগামী ২২ জানুয়ারি দোষীদের ফাঁসি হওয়ার কথা। তবে এ ভাবে মৃত্যুদণ্ড দিয়ে প্রকৃত সমস্যার সমাধান সম্ভব নয় বলেই জানালেন অভিনেত্রী তনুশ্রী দত্ত।

তনুশ্রী বলেন, “কতজনকে আপনি ফাঁসি দেবেন? আমরা একটা সার্বিক সমাধানের পথ খুঁজছি। মৃত্যদণ্ড মোটেই সার্বিক সমাধান নয়

একই সঙ্গে তনুশ্রী বলেন, “অবশ্যই নির্ভয়ার পরিবার সুবিচার পেয়েছেন। আদালত দোষীদের মৃত্যুদণ্ড কার্যকরের নির্দেশ দিয়েছে। এটাই সব থেকে ভালো কথা। কিন্তু সমস্যার শিকড়টা অন্যত্র”।

একই সঙ্গে অভিনেত্রী যোগ করেন, “আমি সেই দিনটার অপেক্ষায় রয়েছি, যে দিন ধর্ষণের মতো অপরাধ চিরতরে নির্মূল হবে”।

বলিউড অভিনেতা নানা পাটকরের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থার অভিযোগ তুলেছিলেন তনুশ্রী। সেই মামলায় মুম্বই পুলিশ বি-সামারি রিপোর্ট জমা দিয়েছে। সেই রিপোর্টের বিরুদ্ধে তিনি ফের আবেদন দাখিল করেছেন বলে মঙ্গলবার জানান তাঁর আইনজীবী।

প্রসঙ্গত, ২০১৮ সালের জুলাই মাসে গণধর্ষণ ও হত্যায় দোষী সাব্যস্ত হওয়া সাব্যস্ত হওয়া মুকেশ, পবন গুপ্তা, বিনয় শর্মা ও অক্ষয় কুমার সিংকে দিল্লি হাইকোর্টের দেওয়া মৃত্যুদণ্ডের নির্দেশ বহাল রাখে সুপ্রিম কোর্ট। এর পর একাধিক বার আদালতের রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন খারিজ করা হয়। গত মঙ্গলবার দোষী সাব্যস্ত অক্ষয় ঠাকুর, বিনয় শর্মা, পবন গুপ্তা এবং মুকেশ সিংহ নামে চারজনের ফাঁসি কার্যকরের পরোয়ানা জারি করে আদালত।